একজন ব্যক্তি কি কি কারণে কাফের হয়

প্রশ্নোত্তর

নিম্নোক্ত বিষয়গুলো পাওয়া গেলে একজন ব্যক্তি কাফির হয়ে যাবে।

  • কুরআন-হাদীসের অকাট্য দলীল দ্বারা প্রমাণিত কোন বিষয় অস্বীকার করা যেমন ঃ নামায, রোযা ফরয হওয়াকে অস্বীকার করা, নামযের সংখ্যা, রাকআতের সংখ্যা, রুকু সাজদার অবস্থা, আযান, যাকাত, হজ্জ, ইত্যাদি বিষয়- এর কোনটি অস্বীকার করা কুফরী।
  • কোন মুসলমানকে কাফের আখ্যায়িত করা কুফরী।
  • কুরআন-হাদীসের অকাট্য দলীল দ্বারা প্রমাণিত কোন বিষয়ের এমন ব্যাখ্যা দেয়া যা কুরআন ও হাদীসের স্পষ্ট বিবরণের খেলাফ এটাও কুফরী
  • কুফর ও ভিন্ন ধম্যের কোন শিআর বা ধর্মীয় বিশেষ নিদর্শন গস্খহণ করা কুফরী। যেমন- হিন্দুদের ন্যায় পৈতা গলায় দেয়া, খৃষ্টানদের ক্রুশ গলায় ঝুলানো ইত্যাদি।
  • কুরআনের কোন আয়াতকে অস্বীকার করা বা তার কোন নির্দেশ সম্পর্কে ঠাট্রা-বিদ্রুপ করা কুফরী
  • কুরআন শরীফকে নাপাক স্থানে ও ময়লা আবর্জনার মধ্যে নিক্ষেপ করা কুফরী
  • ইবাদত ও তাযীমের নিয়তে কবরকে চুমু দেয়া কুফরী। ইবাদতের নিয়ত ছাড়া চুমু দেয়া গুনাহে কবীরা
  • দ্বীন ও ধর্মের কোন বিষয় নিয়ে উপহাস ও ঠাট্রা-বিদ্রুপ করা কুফরী
  • আল্লাহ এবং তাঁর রাসূলের কোন হুকুমকে খারাপ মনে করা এবং তার দোষ ত্রুটি অন্বেষণ করা কুফরী
  • ফেরেশতাদের সম্পর্কে বিদ্বেষভাব পোষণ করা বা তাদের সম্পর্কে কটুক্তি করা কুফরী
  • হারামকে হালাল মনে করা এবং হালালকে হারাম মনে করা কুফরী
  • কারও মৃত্যুতে আল্লাহর উপর অভিযোগ আনা, আল্লাহকে জালেম সাব্যস্ত করা কুফরী
  • কাউকে কুফরী শিক্ষা দেয়া কুফরী
  • হারাম বস্তু পানাহারের সময় বিসমিল্লাহ বলা, যেনার লিপ্ত হওয়ার সময় বিসমিল্লাহ বলা কুফরী
  • দ্বীনী ইলমের প্রতি তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য প্রদর্শন ও অবমাননাকর বক্তব্য প্রদান করা কুফরী
  • হক্কানী উলামায়ে কেরামকে দ্বীনী ইলমের ধারক বাহক হওয়ার দরুণ গালি দেয়া বা তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য করাও কুফরী
  • কেউ প্রকাশ্যে কোন গুনাহ করে যদি বলে যে আমি এর জন্য গর্বিত তাহলে সেটা কুফরী
  • আল্লাহ ও রাসূল সা. এর অবমাননা করা, আল্লাহ ও নবীকে গালি দেয়া এবং তাঁদের শানে বেয়াদবী করা কুফরী
  • যে যাদুর মধ্যে ঈমানের পরিপন্থী কুফর ও শিরকের কথাবার্তা বা কাজকর্ম থাকে তা কুফরী।

এ সকল কারণ কারো মাঝে পাওয়া গেলে সে কাফের হয়ে যাবে। তবে তাকে কাফের বলতে হলে উল্লিখিত নিয়মের প্রতি খেয়াল করতে হবে।

সূত্র- আহকামে জিন্দেগী।

আরও পড়ুন

Share Now

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *